সিএমপি’তে কমিউনিটি পুলিশিং ডে উদযাপিত

‘পুলিশ জনতা ঐক্য করি, স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তুলি’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ ও কমিউনিটি পুলিশিং চট্টগ্রাম মহানগরের যৌথ উদ্যোগে উদযাপিত হয়েছে ‘কমিউনিটি পুলিশিং ডে-২০২৩’।

আজ শনিবার (৪ নভেম্বর) সকাল ১০ টায় নগরীর দামপাড়াস্থ মেট্রোপলিটন পুলিশ লাইন্সের ‘জনক চত্বর’ এ শান্তির প্রতীক কবুতর-বেলুন ও ফেস্টুন শূন্যে ভাসিয়ে শুরু হয় বর্ণিল আয়োজন।পুলিশিং ডে, সিএমপি

এরপর একটি বর্ণাঢ্য র‍্যালি নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। পরে পুলিশ লাইন্সের মাল্টিপারপাস শেডে সিএমপি কমিশনার কৃষ্ণ পদ রায়ের সভাপত্বিতে শুরু হয় আলোচনা সভা।পুলিশিং ডে, সিএমপি

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. রেজাউল করিম চৌধুরী। দৈনিক আজাদীর সম্পাদক ও চট্টগ্রাম মহানগর কমিউনিটি পুলিশের আহবায়ক এম. এ. মালেক ছিলেন বিশেষ অতিথি।

স্বাধীনতা যুদ্ধে পুলিশ সদস্যদের অবদানের কথা শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন প্রধান অতিথি চসিক মেয়র। তিনি করোনা মহামারির সময় পুলিশ সদস্যদের ভূমিকার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

সিএমপি কমিশনার তার বক্তব্যে অপরাধ ভীতির পাশাপাশি পুলিশ ভীতি দূর করতে কমিউনিটি পুলিশিংয়ের গুরুত্ব তুলে ধরেন এবং নিঃস্বার্থভাবে পুলিশের পাশে থেকে সকলকে নাগরিক দায়িত্ব পালন করার আহবান জানান।পুলিশিং ডে, সিএমপি

তিনি নতুন প্রজন্মের জন্য নিরাপদ নগরী গড়ে তুলতে পুলিশ জনগণ কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করার উপর গুরুত্বারোপ করেন।

এসময় তিনি প্রতিটি থানার সিপিও এবং কমিউনিটি পুলিশিং কর্মকর্তাদের বছরব্যাপী কার্যক্রমের জন্য তাদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন ও তাদের হাতে সম্মাননা স্মারক তুলে দেন।পুলিশিং ডে, সিএমপি

এ বছর কমিউনিটি পুলিশিং ডে-২০২৩ উপলক্ষ্যে শ্রেষ্ঠ সিপিও মনোনীত হয়েছেন যথাক্রমে বায়েজিদ বোস্তামি থানার এসআই (নিঃ) রাজীব পাল, সদরঘাট থানার এসআই (নিঃ) নিদর্শন বড়ুয়া, ডবলমুরিং মডেল থানার এসআই (নিঃ) নিপু বিশ্বাস ও ইপিজেড থানার এসআই (নিঃ) আশীষ কুমার দে।

শ্রেষ্ঠ কমিউনিটি পুলিশিং সদস্য মনোনীত হয়েছেন কমিউনিটি পুলিশিং ডবলমুরিং মডেল থানার সাধারণ সম্পাদক আসাদ খান,কমিউনিটি পুলিশিং পাঁচলাইশ মডেল থানার সদস্য সচিব মোহাম্মদ আবু সাঈদ সেলিম,কমিউনিটি পুলিশিং বাকলিয়া থানার সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহাম্মদ রুবেল এবং কমিউনিটি পুলিশিং ইপিজেড থানার কার্যকরী কমিটির সদস্য সেলিম আফজাল।

এসময় সেখানে সিএমপির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (প্রশাসন ও অর্থ) এম এ মাসুদ, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপারেশন) আ স ম মাহতাব উদ্দিন, পিপিএম-সেবা অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) আবদুল মান্নান মিয়া, বিপিএম, উপ-পুলিশ কমিশনার (সদর) মো. আব্দুল ওয়ারীশ, চট্টগ্রাম মহানগর কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সদস্য সচিব অহিদ সিরাজ চৌধুরী স্বপনসহ পুলিশের অন্যান্য উধ্বর্তন কর্মকর্তাবৃন্দ, মহানগর কমিউনিটি পুলিশিং ও বিট পুলিশিং এর নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য : ‘পুলিশ জনতা ঐক্য করি স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তুলি’ এই মূলমন্ত্রকে ধারণ করে জনগণের দোরগোড়ায় পুলিশিং সেবা পৌঁছে দিতে কর্তব্যনিষ্ঠা ও পেশাদারিত্বের সাথে কাজ করে যাচ্ছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের প্রতিটি সদস্য।

কমিউনিটি পুলিশিং এর মাধ্যমে প্রযুক্তির এই উৎকর্ষতার যুগে অপরাধের বহুমাত্রিকতা নিয়ন্ত্রণে জনগণের সক্রিয় অংশগ্রহণ পুলিশিং কার্যক্রমকে আরও শক্তিশালী করছে।

এ লক্ষ্যে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের প্রতিটি থানায় পরিচালিত হচ্ছে কমিউনিটি পুলিশিং কার্যক্রম। বিট পুলিশিং মিটিং, স্কুল ও কলেজসহ মসজিদ কেন্দ্রিক সচেতনতামূলক প্রচারণা ইত্যাদি কার্যক্রমের মাধ্যমে অপরাধ নিয়ন্ত্রণে বৃদ্ধি পাচ্ছে জনগণের সম্পৃক্ততা।

মুজিববর্ষের অংঙ্গিকার বাস্তবায়নে পুলিশকে জনতার পুলিশে পরিণত করার এ যেন এক নতুন প্রচেষ্টা।

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on linkedin
LinkedIn
Share on email
Email

সম্পকিত খবর